রবিবার ২৫শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ১২ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
ই-পেপার   রবিবার ২৫শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

ব্রেকিং নিউজঃ
টাঙ্গাইলের কালিহাতীতে প্রেসক্লাবের সভাপতি রঞ্জন কৃষ্ণ পন্ডিত সম্পাদক মিল্টন ইউক্রেনের স্বপ্ন ধ্বংস করতে পারবে না রাশিয়া : জেলেনস্কি রেকর্ড সংখ্যক পর্যটকের উপস্থিতিতে সরগরম কুয়াকাটা সৈকত।। কলাপাড়ায় অতিরিক্ত মূল্যে সার বিক্রি করায় পরিবেশককে জরিমানা।। উলিপুরে দৈনিক নাগরিক ভাবনা পত্রিকার ৪র্থ প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত পটুয়াখালীতে মিথ্যা বানোয়াট ও কাল্পনিক অপপ্রচারের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন। কাশিয়ানীতে র‍্যাব ৬ এর পক্ষ থেকে এস,এস,সিতে  জিপিএ ৫ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা  ও বৃত্তি প্রদা... পটুয়াখালীর বাউফলে পতিতাবৃত্তির অভিযোগে ৩ নারীসহ ৪জন গ্রেফতার। ফকিরহাটে ২৪ কেজি গাঁজা ও ৩৬০ পিস ইয়াবাসহ চার মাদক কারবারি গ্রেপ্তার বাউফলে চেতনা নাশক স্প্রে জনমনে আতঙ্ক বিরাজ ৷
বাড়িতে মায়ের লাশ রেখে এসএসসি পরীক্ষায় সাদিয়া ও শারমিন।
কায়সার হামিদ মানিক,কক্সবাজার।
প্রকাশ: ২ মে, ২০২৩, ১১:৪৩ অপরাহ্ণ |
অনলাইন সংস্করণ

বাড়িতে মায়ের লাশ রেখে এসএসসি পরীক্ষায় সাদিয়া ও শারমিন।

নিউজ ডেস্কঃ  রমজান মাসে ব্রেনস্ট্রোকে আক্রান্ত হন আনোয়ারা বেগম।এরপর থেকে নানান ধরনের সমস্যায় ভুগছিলেন তিনি। সোমবার (১ মে) রাতে হঠাৎ করে অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে টেকনাফ থেকে কক্সবাজার হাসপাতালে নেওয়া হয়। অবস্থার অবনতি হলে চট্টগ্রাম নেওয়ার প্রস্তুতি নিতেই মা আনোয়ারা বেগম মারা গেছেন। শোকে বিহ্বল স্বজনেরা যখন মরদেহ দাফনের প্রস্তুতি নিচ্ছেন, তখন লাশ বাড়িতে রেখেই সাদিয়া ফেরদৌস ও শারমিন ইয়াসমিন নামের দুজন শিক্ষার্থীকে এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিতে হলো। পরীক্ষা শেষে বাড়িতে ফিরে মায়ের লাশ দাফনে অংশ নেবেন তারা।

কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলায় মঙ্গলবার এ ঘটনা ঘটে। সাদিয়া ফেরদৌস ও শারমিন ইয়াসমিন সাবরাং উচ্চবিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী। তারা দুজন মানবিক বিভাগের শিক্ষার্থী।

সাদিয়া ও শারমিনের পরীক্ষার কেন্দ্র পড়েছে টেকনাফ উপজেলা সদরের এজাহার সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে। সকাল ১০টার আগে চোখ মুছতে মুছতে ওই কেন্দ্রে আসেন দুই বোন।

সহপাঠী ও কেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত শিক্ষকদের সহযোগিতায় দ্বিতীয় দিনের বাংলা দ্বিতীয় পত্র বিষয়ের পরীক্ষায় অংশ নেন তারা।

সাদিয়া ও শারমিন পরিবার এবং স্থানীয় লোকজন জানান, টেকনাফের সাবরাং ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের পানছড়ি পাড়া গ্রামের জহির আহমদের স্ত্রী ৫০ বছর বয়সী আনোয়ারা বেগম। তার দুই মেয়ে সাদিয়া ও শারমিন এসএসসি পরীক্ষা শুরুর দ্বিতীয় দিন। তাদের পরিবারের তিন মেয়ে ও চার ছেলে সন্তান রয়েছে।

হঠাৎ ভোরের দিকে মা আনোয়ারা বেগমের মৃত্যু হয়। বাড়িজুড়ে শোকের আবহ, চলছে লাশ দাফনের প্রস্তুতি। মায়ের মৃত্যুর পর সাদিয়া ও শারমিন ভেঙে পড়লেও স্বজনদের কথায় এসএসসি পরীক্ষার কেন্দ্রে পরীক্ষা দিতে আসে তারা।

পরীক্ষা শেষে সাদিয়া ও শারমিন বাড়ি ফেরার পর বিকেল তিনটার দিকে সাবরাং পানছড়ি পাড়া স্কুল মাঠে মা আনোয়ারা বেগমের জানাজা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা। পরে তাদের পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হবে।

সাবরাং উচ্চবিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মফিজ উদ দৌল্লাহ বলেন, মা হারানো দুজন শিক্ষার্থী খুবই মেধাবী। মেয়ে দুটি দুটি কক্ষে আলাদাভাবে পরীক্ষা দিচ্ছেন। তবে তারা মাঝেমধ্যে কান্নায় ভেঙে পড়তে দেখা গেছে।

দুই কক্ষের দায়িত্বরত শিক্ষক জাকারিয়া আলফাজ ও রিফাত জাহান মিনা জানান, পরীক্ষার শুরু হওয়ার আগে সকল শিক্ষার্থীরা তাদেরকে উৎসাহিত করেছেন। তবে মাঝেমধ্যে তারা দুজন কাঁদতে কাঁদতে পরীক্ষার খাতায় লিখতে দেখা গেছে। আমরা তাদের সান্ত্বনা দিয়েছি।

ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ খোরশেদ আলম বলেন, দুই পরীক্ষার্থীর মায়ের মৃত্যর খবর পাওয়া পর তাদের মনোবল বাড়ানোর জন্য তাদেরকে বিভিন্নভাবে উৎসাহিত করা হয়।

কেন্দ্রসচিব ও সরকারি এজাহার বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা শিউলি চৌধুরী বলেন, ‘সাদিয়া ও শারমিন মায়ের মৃত্যুর বিষয়টি আমরা সকালেই জানতে পেরেছিলাম। সবার সঙ্গে বসে পরীক্ষা দিলে তার জন্য ভালো হবে ভেবে তার জন্য বিশেষ কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। আমরা চেয়েছিলাম সে সবার সঙ্গে স্বাভাবিকভাবেই পরীক্ষা দিক। তারা দুই বোন এক হাতে রুমাল দিয়ে বারবার চোখ মুছছিল। আর অন্য হাতে পরীক্ষার খাতায় লিখেছে।

সাদিয়া ও শারমিন বলেন, ‘মা আমাদের অনেক ভালোবাসতেন। চাইতেন আমরা যেন পড়ালেখা করে অনেক বড় হই। তাই এমন অবস্থায়ও আমরা পরীক্ষায় অংশ নিয়েছি। মায়ের আত্মাকে আমরা কষ্ট দিতে চাই না।

জানতে চাইলে টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো কামরুজ্জামান বলেন, ‘মাকে হারানো যে কারও জন্য খুবই কষ্টদায়ক। তারপরও এসএসসি পরীক্ষার্থী সাদিয়া ও শারমিন মা হারানোর কষ্ট নিয়ে পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে। আমরাও তাদের পরীক্ষার সময় যতটা সম্ভব পাশে থাকার চেষ্টা করেছি।

Share Button




এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

This image has an empty alt attribute; its file name is add-1-1024x672.jpg

সর্বাধিক পঠিত

  • প্রধান উপদেষ্টাঃ শাহজাদা পারভেজ টিনু।
    আইন উপদেষ্টাঃ এ্যাড আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ
    (জজকোর্ড ঢাকা)
    সম্পাদক ও প্রকাশক: এইচ এম মোহিবুল্লাহ (মোহিব)
    নির্বাহী সম্পাদকঃ মো: মোস্তাফিজুর রহমান।
    ব্যবস্থাপনা পরিচালক: নূর-ই আলম আজাদ।
    যুগ্ন সম্পাদকঃ আমিনুর রহমান রুবেল ও এস এম আমিনুল ইসলাম।
    সাহিত্য সম্পাদকঃ খলিলুর রহমান তাং ও ইউসুফ আলী তাং।
    বার্তা সম্পাদক : এস এম আওলাদ হোসেন।

অফিসঃ
ঢাকাঃ সুলতান টাওয়ার (৩য় তলা) টংঙ্গী বাজার, গাজিপুর, ঢাকা।
বরিশালঃ ৩৪৫ সিটি প্লাজা ৩য় তলা ,ফজলুল হক এভিনিউ বরিশাল।
কলাপাড়াঃ মমতা মার্কেট,বাদুড় তলী সূইজগেট,কলাপাড়া,পটুয়াখালী।
E-mail: somoynewskp@gmail.com
মোবাইলঃ 01721987722

Design & Developed by
  টাঙ্গাইলের কালিহাতীতে প্রেসক্লাবের সভাপতি রঞ্জন কৃষ্ণ পন্ডিত সম্পাদক মিল্টন   ইউক্রেনের স্বপ্ন ধ্বংস করতে পারবে না রাশিয়া : জেলেনস্কি   রেকর্ড সংখ্যক পর্যটকের উপস্থিতিতে সরগরম কুয়াকাটা সৈকত।।   কলাপাড়ায় অতিরিক্ত মূল্যে সার বিক্রি করায় পরিবেশককে জরিমানা।।   উলিপুরে দৈনিক নাগরিক ভাবনা পত্রিকার ৪র্থ প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত   পটুয়াখালীতে মিথ্যা বানোয়াট ও কাল্পনিক অপপ্রচারের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন।   কাশিয়ানীতে র‍্যাব ৬ এর পক্ষ থেকে এস,এস,সিতে  জিপিএ ৫ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা  ও বৃত্তি প্রদান।   পটুয়াখালীর বাউফলে পতিতাবৃত্তির অভিযোগে ৩ নারীসহ ৪জন গ্রেফতার।   ফকিরহাটে ২৪ কেজি গাঁজা ও ৩৬০ পিস ইয়াবাসহ চার মাদক কারবারি গ্রেপ্তার   বাউফলে চেতনা নাশক স্প্রে জনমনে আতঙ্ক বিরাজ ৷   বিয়ে করার জন্য টিভি উপস্থাপককে অপহরণ তরুণীর, এরপর……………….   ‘গোপনে সমাহিত না করলে কারাগারেই সমাহিত করা হবে নাভালনিকে’   মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে নির্মিত হচ্ছে থ্রিডি অ্যানিমেশন সিনেমা   মিয়ানমারের গুলি ভালো লক্ষণ নয়: ড. ইউনূস   কলাপাড়ায় জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে হামলা, নারী সহ আহত-৫।।   পটুয়াখালী পৌরসভার বিদ্যুৎ বিল বকেয়া ১০কোটি টাকা।   পৌরসভা নির্বাচনে তথ্য গোপন ও ঋণ খেলাপির মনোনয়ন পত্র বৈধ ঘোষণায় পটুয়াখালীতে তোলপাড়ঃ সংশ্লিষ্টদের নিরপেক্ষতা নিয়ে প্রশ্ন।   তথ্যের বিনিময়ে রুশ কর্মকর্তাদের নাগরিকত্বের প্রস্তাব   ইসরায়েলের বিমান হামলা সিরিয়ায়, নিহত ২   পকেটমার পেশায় নিয়োগ, বেতন ৮০ হাজার টাকা!