সোমবার ৬ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ২১শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
ই-পেপার   সোমবার ৬ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

ব্রেকিং নিউজঃ
লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জে হত্যা চেষ্টার ঘটনার বিচারের দাবি জানিয়ে লক্ষ্মীপুরে মানববন্ধন চাঁদপুর জেলা পুলিশের মাসিক অপরাধ সভা অনুষ্ঠিত কাশিয়ানীতে নামযঙ্গের  ‘কমিটি গঠন’ নিয়ে সংঘর্ষে নবনির্বাচিত  চেয়ারম্যানসহ আহত ১০। রেড ক্রিসেন্টে লক্ষ্মীপুর ইউনিটের ভাইস চেয়ারম্যান পিপি জসিম। ত্রিশালে মহান বিজয় দিবস উদযাপন উপলক্ষে প্রস্ততিমূলক সভা অনুষ্ঠিত। টেকনাফে বিদেশী সিগারেট বোঝাই বোটসহ চীনা নাগরিক আটক উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্পে বিয়ে বাড়ীতে সংঘর্ষ, নিহত -১ আটক-২ রাজধানীর সবুজবাগে জহির নামে এক ব্যক্তিকে নিশৃংস ভাবে গলা কেটে হত্যা। রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে অস্ত্র-ইয়াবাসহ যুবক আটক টেকনাফে পৃথক অভিযানে রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে অপহৃত যুবক ও কিশোরী উদ্ধার
জমির নিয়ে বিরোধেই লক্ষ্মীপুরে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে,দাবি স্ত্রীর।
এস এম আওলাদ হোসেন, সিনিয়র রিপোর্টারঃ
প্রকাশ: ২০ জুন, ২০২১, ৯:২৬ অপরাহ্ণ |
অনলাইন সংস্করণ

জমির নিয়ে বিরোধেই লক্ষ্মীপুরে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে,দাবি স্ত্রীর।
সময় নিউজ বিডিঃ  লক্ষ্মীপুরে রাতে পিটিয়ে আব্দুস সহিদ নামে এক মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও স্থানীয় জেলে হত্যার ঘটনায় ইউপি চেয়ারম্যানসহ ২৭ জনের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে।
চোর সন্দেহে নয়, জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে পরিকল্পিত ভাবে সহিদকে হত্যা করা হয় বলে দাবী নিহতের স্ত্রী ও স্বজনদের। রোববার (২০ জুন) বিকেলে লক্ষ্মীপুর শহরের একটি পত্রিকা কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে এ কথা বলেন নিহত সহিদের স্ত্রী বিবি কুলছুমা বেগম। এসময় মামলায় আসামীদের দ্রুত গ্রেফতার পূর্বক ফাঁসির দাবী জানান তিনি।
নিহত আবদুস সহিদ একজন মৎসজীবী। সে সদর উপজেলার চর রমনী মোহন ইউনিয়নের পশ্চিম চর রমনী মোহন গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা মৃত হাসেম মোল্লার ছেলে। এছাড়াও তিনি চার ছেলে সন্তানের জনক।
সংবাদ সম্মেলনে স্ত্রী বিবি কুলছুমা বেগম বলেন, মৃত্যুর পূর্বে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার স্বামী তার কাছে ঘটনার বর্ণনা করেছেন। তিনি কোন চুরির সাথে জড়িত ছিলেন না। তাকে চোর আখ্যা দিয়ে নির্যাতন করা হয়েছে। ঘটনার সাথে সদর উপজেলার চর রমনী মোহন ইউনিয়নের (ইউপি) চেয়ারম্যান আবু ইউসুফ ছৈয়ালের নির্দেশে তার ছেলে আবু সুফিয়ান ও ভাতিজা বাবুল ছৈয়াল এবং আত্মীয় দেলোয়ার মুন্সিসহ মামলার অন্য আসামীরা জড়িত ছিলো।
তিনি বলেন, মামলার প্রধান আসামী বাবুল ছৈয়াল, ২য় আসামী দেলোয়ার মুন্সি ও হুমায়ূনের সাথে পূর্ব থেকে বিরোধ ছিলো তার স্বামী আব্দুস সহিদের। প্রায় দুই বছর আগে আদালতে দেওয়ানী মামলা দায়ের করেন তিনি। বিরোধের জেরে গত ১১ ফেব্রুয়ারী অভিযুক্ত দেলোয়ার মুন্সির বাড়িতে চুরির সাজানো ঘটনায় মামলা দিলে আব্দুস সহিদের স্ত্রী তথা আমাকে দীর্ঘদিন কারাভোগ করান। কারামুক্তির পর তারা আবারও হত্যার উদ্দেশ্যে আমার উপর ২৪ এপ্রিল হামলা চালায়।
এ ঘটনায় গত ২৫ মে বিচার চেয়ে নিজেই (কুলছুম) বাদি হয়ে দেলোয়ার মুন্সি, বাবুল ছৈয়াল, গিয়াস উদ্দিন মুন্সী ও হুমায়ূনকে বিবাদী করে আদালতে মামলা করি।
এরপর থেকে আমাকে এবং আমার স্বামী আবদুস সহিদকে প্রাণে হত্যার জন্য বিভিন্ন ভাবে চেষ্টা করে আসছিলো আসামীরা। তাদের ভয়ে শ্বশুর বাড়ি থেকে স্বামীকে নিয়ে বাপের বাড়ি চলে যাই। তবুও শেষ রক্ষা হলো না স্বামী আবদুস সহিদের।
স্বামী হত্যার বিবরণ দিয়ে বিবি কুলছুমা আরো বলেন, গত ১৪ জুন রাতে আব্দুস সহিদ তার শ^শুর বাড়ি থেকে মধ্য চররমনী মোহন থেকে মাকে দেখতে পশ্চিম চররমনী মোহনে নিজ বাড়ি যান। রাত ১০ টার দিকে ইউপি চেয়ারম্যানের পরামর্শে মামলার অন্য অভিযুক্তরা তার স্বামীকে স্থানীয় একটি খাল পাড়ের সুপারী বাগানে নিয়ে চোর আখ্যা দিয়ে হত্যার উদ্দেশ্যে নির্যাতন করে। এক পর্যায়ে তারা মৃত ভেবে ফেলে রেখে যায়। পরদিন সকালে স্থানীয়রা ঘটনাস্থল থেকে মুমুর্ষ অবস্থায় আব্দুস সহিদকে উদ্ধার করে প্রথমে লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে ও পরে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করান। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১৬ জুন সকালে মারা যায় মুক্তিযোদ্ধার সন্তান আব্দুস সহিদ। মৃতদেহ পুনরায় সদর হাসপাতালে নিয়ে আসলে পুলিশ মর্গে পাঠিয়ে বিকেলে ময়নাতদন্ত করায়।
এঘটনায় রাতেই ইউপি চেয়ারম্যানসহ ২৭ জনকে আসামী করে সদর থানায় মামলা দায়ের করা হয়। কিন্তু মামলা দায়েরের পরও এখনো কোন আসামী গ্রেফতার না হওয়ায় শঙ্কিত তিনি। অভিযুক্তরা প্রতিনিয়তই প্রাণে হত্যার হুমতি দিচ্ছে।
বর্তমানে চার ছেলে সন্তান নিয়ে চরম নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছে বলে সংবাদ সম্মেলনে জানা বিবি কুলছুমা।
এসময় সংবাদ সম্মেলনে নিহতের স্বজন ও জেলায় কর্মকরত প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিকস মিডিয়ার সাংবাদিক বৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
Share Button




এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

This image has an empty alt attribute; its file name is add-1-1024x672.jpg

সর্বাধিক পঠিত

প্রধান উপদেষ্টাঃ শাহজাদা পারভেজ টিনু।
আইন উপদেষ্টাঃ এ্যাড আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ
(জজকোর্ড ঢাকা)
সম্পাদক ও প্রকাশক: এইচ এম মোহিবুল্লাহ (মোহিব)
নির্বাহী সম্পাদকঃ মো: মোস্তাফিজুর রহমান।
ব্যবস্থাপনা পরিচালক: নূর-ই আলম আজাদ।
যুগ্ন সম্পাদকঃ আমিনুর রহমান রুবেল ও এস এম আমিনুল ইসলাম।
সাহিত্য সম্পাদকঃ খলিলুর রহমান তাং ও ইউসুফ আলী তাং।
বার্তা সম্পাদক : মো: নূর হোসেন।

অফিসঃ
ঢাকাঃ সুলতান টাওয়ার (৩য় তলা) টংঙ্গী বাজার, গাজিপুর, ঢাকা।
বরিশালঃ ৩৪৫ সিটি প্লাজা ৩য় তলা ,ফজলুল হক এভিনিউ বরিশাল।
কলাপাড়াঃ মমতা মার্কেট,বাদুড় তলী সূইজগেট,কলাপাড়া,পটুয়াখালী।
E-mail: somoynewskp@gmail.com
মোবাইলঃ 01721987722

Design & Developed by
  লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জে হত্যা চেষ্টার ঘটনার বিচারের দাবি জানিয়ে লক্ষ্মীপুরে মানববন্ধন   চাঁদপুর জেলা পুলিশের মাসিক অপরাধ সভা অনুষ্ঠিত   কাশিয়ানীতে নামযঙ্গের  ‘কমিটি গঠন’ নিয়ে সংঘর্ষে নবনির্বাচিত  চেয়ারম্যানসহ আহত ১০।   রেড ক্রিসেন্টে লক্ষ্মীপুর ইউনিটের ভাইস চেয়ারম্যান পিপি জসিম।   ত্রিশালে মহান বিজয় দিবস উদযাপন উপলক্ষে প্রস্ততিমূলক সভা অনুষ্ঠিত।   টেকনাফে বিদেশী সিগারেট বোঝাই বোটসহ চীনা নাগরিক আটক   উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্পে বিয়ে বাড়ীতে সংঘর্ষ, নিহত -১ আটক-২   রাজধানীর সবুজবাগে জহির নামে এক ব্যক্তিকে নিশৃংস ভাবে গলা কেটে হত্যা।   রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে অস্ত্র-ইয়াবাসহ যুবক আটক   টেকনাফে পৃথক অভিযানে রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে অপহৃত যুবক ও কিশোরী উদ্ধার   নারায়ণগঞ্জ সিটি নির্বাচনে নৌকার মাঝি আইভী।   অবশেষে সম্রাটের সহযোগী মেহেদী অস্ত্র ও গুলিসহ গ্রেপ্তার   কুমিল্লায় প্রিজাইডিং অফিসারকে ছুরিকাঘাতের ঘটনায় গ্রেপ্তার ৭   পিরোজপুরের  এহসান গ্রুপের ১৭ হাজার কোটি টাকা আত্মসাৎ মামলার তদন্তে নাজিরপুর পিবিআই।   ‘গাঁয়ে মানে না আপনি মোড়ল’———–এস এম আওলাদ হোসেন,জার্নালিস্ট।   চাঁদপুরে হাজীগঞ্জে বাস-মোটরসাইকেল মুখোমুখি সংঘর্ষে ৩ জন নিহত   মুজিববর্ষে মোংলায় কমিউনিটি ক্লিনিক উদ্বোধন করলেন উপমন্ত্রী   মোল্লাহাটে তৃতীয় পর্যায়ে আরো ৭০টি গৃহ নির্মান কাজের উদ্বোধন করা হয়েছে।   অবশেষে কাউন্সিলর হত্যা: প্রধান আসামি শাহ আলম ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত।   দুর্নীতি দমন কমিশনে এক-চতুর্থাংশ অনুসন্ধান তদন্ত মেয়াদোত্তীর্ণ আইনে বেঁধে দেওয়া সময়ের পরও চলছে ১১১৯টি অনুসন্ধান।